কালীগঞ্জে অধ্যক্ষের স্বাক্ষর ছাড়া শিক্ষক কর্মচারীর বেতন না দিতে রুপালী ব্যাংকে মাউশি’র চিঠি - Ekushey Media bangla newspaper

Breaking News

Home Top Ad

এইখানেই আপনার বা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ: 01915-392400

নিউজের উপরে বিজ্ঞাপন

Saturday, 30 November 2019

কালীগঞ্জে অধ্যক্ষের স্বাক্ষর ছাড়া শিক্ষক কর্মচারীর বেতন না দিতে রুপালী ব্যাংকে মাউশি’র চিঠি


রবিউল ইসলাম, ঝিনাইদহ:>>>
সদ্য জাতীয়করণকৃত ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ সরকারি মাহতাব উদ্দীন ডিগ্রিকলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ আব্দুল মজিদ মন্ডলের ক্ষমতা খর্ব করে চিঠি দিয়েছে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর। এখন থেকে মজিদ মন্ডলের স্বাক্ষরে আর কলেজের শিক্ষক কর্মচারীদের বেতন ভাতা উত্তোলন করা যাবে না।
কালীগঞ্জ সরকারী মাহতাব উদ্দীন ডিগ্রি কলেজের বৈধ অধ্যক্ষ ড. মাহবুবুর রহমানের স্বাক্ষর ব্যতীত কারো সাক্ষর বৈধ হবে না। গত বুধবার বিকালে রুপালী ব্যাংক কালীগঞ্জ শাখার ব্যবস্থাপকের বরাবর পাঠানো অধিদপ্তরের ৩৭.০২.০০০০.১০৫.৩১.২২১.২০১৮/৬২৮৬/৬ নং স্মারকের চিঠিতে এই আদেশ প্রদান করা হয়।
চিঠিতে উল্লেখ করা হয় মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা অধিদপ্তর, শিক্ষা মন্ত্রনালয়, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় ও মহামান্য সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট ডিভিশনের রিট পিটিশন ১০৩২/১৬ রায় মোতাবেক কালীগঞ্জ সরকারী মাহতাব উদ্দীন ডিগ্রিকলেজের সাময়িক বরখাস্তকৃত অধ্যক্ষ ড. মাহবুবুর রহমানের বরখাস্ত আদেশ প্রত্যাহার পুর্বক তাকে চাকরীতে পুর্নবহাল করার জন্য শিক্ষা মন্ত্রনালয় থেকে অনুরোধ করা হয়।
এ জন্য কালীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে চিঠি দেওয়া হয়। তাছাড়া অবিলম্বে দায়িত্ব হস্তান্তর করতে ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ মজিদ মন্ডলকেও পত্র দেওয়া হয়। কিন্তু ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ আব্দুল মজিদ মন্ডল দায়িত্ব হস্তান্তর না করে লাঠিয়াল বাহিনী নিয়োগ করে অধ্যক্ষ ড. মাহবুবুর রহমানকে হুমকী দেয়। 
বাধ্য হয়ে ড. মাহবুব কালীগঞ্জ থানায় ১২৫৪ নং জিডি করেন। মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের আদেশ প্রতিপালন না করায় আব্দুল মজিদ মন্ডলকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেওয়া হয়। মজিদ মন্ডল মাউশির চিঠির জবাব দেন।
মজিদ মন্ডলের দেওয়া জবাব যথাযথ ও সন্তোষজনক না হওয়ায় অধ্যক্ষ ড. মাহবুবুর রহমান ব্যতিত অন্য কারো স্বাক্ষরে কালীগঞ্জ সরকারী মাহতাব উদ্দীন ডিগ্রিকলেজের শিক্ষক কর্মচারীর বেতন ভাতা প্রদান না করার জন্য রুপালী ব্যাংক কালীগঞ্জ শাখার ব্যবস্থাপককে বলা হয়েছে।
এ ব্যাপারে কালীগঞ্জ সরকারী মাহতাব উদ্দীন ডিগ্রি কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ আব্দুল মজিদ মন্ডলের বক্তব্য জানতে তার মুঠোফোনে একাধিকবার ফোন করলে তিনি ফোন রিসিভ করেননি।




একুশে মিডিয়া/এমএসএ

No comments:

Post a comment

নিউজের নীচে। বিজ্ঞাপনের জন্য খালী আছে

Pages