বাঁশখালীতে ভেজাল ঔষুধ বিক্রি ও ডিগ্রিধারী ডাক্তার পরিচয় দেওয়ায় সোয়া লাখ জরিমানা! - Ekushey Media bangla newspaper

Breaking News

Home Top Ad

এইখানেই আপনার বা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ: 01915-392400

নিউজের উপরে বিজ্ঞাপন

Tuesday, 18 February 2020

বাঁশখালীতে ভেজাল ঔষুধ বিক্রি ও ডিগ্রিধারী ডাক্তার পরিচয় দেওয়ায় সোয়া লাখ জরিমানা!


একুশে মিডিয়া, বাঁশখালী (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি:>>>
চট্টগ্রামের বাঁশখালীতে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযানে ভেজাল ঔষুধ বিক্রির দায়ে চার ফার্মেসী ও এক পল্লী চিকিৎসকের কাছ থেকে জরিমানা আদায় করা হয়েছে। মঙ্গলবার (১৮) ফেব্রুয়ারি সকালে উপজেলার বিভিন্ন ফার্মেসীতে ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করেন চট্টগ্রাম ড্রাগ এন্ড কেমিষ্ট এসোসিয়েশনের ঔষুধ তত্ত্ববধায়ক মো. কামরুল ইসলাম ও বাঁশখালী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মোমেনা আক্তার।
এ সময় তাঁদের সাথে ছিলেন বাঁশখালী থানা পুলিশের একটি টিম। অভিযান পরিচালনাকালে উপজেলার বৈলছড়ি বাজার এলাকার বাংলাদেশ ফার্মেসীর মালিক প্রদীপ কুমারের নিকট থেকে ৫০ হাজার টাকা, তালুকদার ফার্মেসীর মালিক সুখেন্দু বিকাশ তালুকদারের নিকট থেকে ১৫ হাজার টাকা, ব্রাদার্স ফার্মেসীর মালিক সঞ্জয় দাশের নিকট থেকে ৬ হাজার টাকা ও ইসলাম ফার্মেসীর মালিক ছোটন বিশ্বাসের নিকট থেকে ৬ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়।
ঔষুধের চ্যাম্পল বিক্রি ও মেয়াদ উত্তীর্ণ ঔষুধ বিক্রির দায়ে তাদের নিকট থেকে এই জরিমানা আদায় করা হয়েছে।
এ সময় একজন পল্লী চিকিৎসকের নিকট থেকে ডিগ্রীধারী চিকিৎসক পরিচয় দেওয়ার অপরাধে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়।
এদিকে ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনার খবর পেয়ে উপজেলার প্রায় ফার্মেসী গুলো বন্ধ করে দেয় মালিকরা।
এ সময় ঔষুধ কিনতে না পেরে দুর্ভোগে পড়েন সাধারণ রোগীরা। এরই মধ্যে উপজেলার বাঁশখালী পৌরসদরের জলদী মহাজন পাড়া এলাকার শ্বাস কস্টের রোগী অজিত দাশ (৬৫) গ্যাস দিতে না পেরে মারা গেছেন বলে জানা যায়।
স্থানীয়রা জানান, ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনার খবর পেয়ে সব ফার্মেসী বন্ধ করে দেয়ায় সাধারণ রোগীরা ভীষন ভাবে দুর্ভোগের শিকার হয়। এ সময় শ্বাস কস্টের রোগী অজিত দাশ গ্যাস দিতে না পেরে প্রাণ হারায়। সে পৌর সদরের একটি স্বর্ণের দোকানে চাকুরী করতো বলে জানান স্থানীয়রা। 
এ ব্যাপারে বাঁশখালী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোমেনা আক্তার একুশে মিডিয়াকে বলেন, বৈলছড়ি বাজারে ৪টি ফার্মেসী থেকে ঔষুধের চ্যাম্পল বিক্রি ও মেয়াদ উত্তীর্ণ ঔষুধ রাখার দায়ে সর্বমোট ৭৭ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে এবং এক পল্লী চিকিৎসককে ডিগ্রীধারী ডাক্তার পরিচয় দেয়ার অপরাধে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে।


একুশে মিডিয়া/এমএসএ

No comments:

Post a comment

নিউজের নীচে। বিজ্ঞাপনের জন্য খালী আছে

Pages