পলাশে কার্ড দেওয়ার এক সপ্তাহ আগেই ও এমএস এর ১০ কেজি করে চাউল উত্তোলন - Ekushey Media bangla newspaper

Breaking News

Home Top Ad

এইখানেই আপনার বা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ: 01915-392400

নিউজের উপরে বিজ্ঞাপন

Tuesday, 5 May 2020

পলাশে কার্ড দেওয়ার এক সপ্তাহ আগেই ও এমএস এর ১০ কেজি করে চাউল উত্তোলন

আল আমিন মুন্সী:

নরসিংদীর পলাশ উপজেলায় হতদরিদ্রদের মাঝে এমএস এর ১০ টাকা কেজি চাল বিতরণে অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে। ভুক্তভোগীদের অভিযোগ, তাদের চালের কার্ড দেওয়া হলেও কার্ড দেওয়ার এক সপ্তাহ আগেই একটি মহল ১০ কেজি করে চাল তুলে নেয়।এমন অভিযোগ করেন, পলাশ উপজেলার ঘোড়াশাল পৌর এলাকার ২নং ওয়ার্ডের ভাগ্যেরপাড়া গ্রামের একাধিক ভুক্তভোগি পরিবার।
জানা যায়, করোনা ভাইরাস সংকট মুহুর্তে সারা দেশেই সরকার কর্তৃক হত দরিদ্রদের জন্য ওএমএস এর ১০ টাকা কেজি চাল বিতরণ কার্যক্রম শুরু করা হয়েছে। এরই ধারাবাহিকতায় গত ২৩ এপ্রিল থেকে পলাশ উপজেলায় প্রথম ধাপে দরিদ্রদের মাঝে ওএমএস এর চাল বিতরণ কার্যক্রম চালু করা হয়।
অথচ প্রথম ধাপের চাল বিতরণে দেখা দেয় অনিয়মের চিত্র।পৌর এলাকার ভাগ্যের পাড়া গ্রামের ছালাম মিয়া, রাশিদা বেগম, সূর্য্যবানসহ একাধিক ভুক্তভোগি জানায়, গত ২২ এপ্রিল তাদের নামে ওএমএস এর কার্ড ইস্যু করা হলেও কার্ড বিতরণ করা হয় ৩০ এপ্রিল।
বিতরণের আগে গত ২৩ এপ্রিল প্রথম দফায় চাল বিতরণে তাদের কার্ডে ১০ কেজি করে চাল উত্তোলনের বিষয় লেখা হয়। অথচ এই চাল তারা পায়নি।ভাগ্যের পাড়া গ্রামের জাহানারা বেগম বলেন, ৩০ এপ্রিল কার্ড নিয়ে চাউল আনতে গেলে ডিলার আমার কার্ড দেখে জানায় আমি নাকি ২৩ এপ্রিল ১০ কেজি চাল নিয়েছি। অথচ আমাকে কার্ডই দিয়েছিল ৩০ এপ্রিল। পরে তারা আমাকে চাল না দিয়ে ফিরিয়ে দেয়।
বিষয়গুলো মেয়র মহদোয়দকে অবগত করা হয়েছে। ঘোড়াশাল পৌর মেয়র আলহাজ্ব শরীফুল হক একুশে মিডিয়াকে বলেন, এ বিষয়ে কয়েকজন ভুক্তভোগী আমাকে জানিয়েছে। বিষয়টি দ্রুত সমাধান করার জন্য ডিলারকে জানানো হয়েছে।
এব্যাপারে ঘোড়াশাল পৌর এলাকার ১,২,৩ এর ওএমএস এর ডিলার মোঃ আওলাদ হোসেন শেখর একুশে মিডিয়াকে বলেন, ভাগ্যের পাড়া গ্রামের ১০ জনের এই সমস্যা দেখা দিয়েছে, তাদের পরবর্তীতে ২০ কেজি করে চাল দিয়ে দেওয়া হবে।
এদিকে চাল বিতরণের অনিয়মের বিষয়ে পলাশ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (অ.দা.) ফারহানা আলী একুশে মিডিয়াকে বলেন, এখনো কোন অভিযোগ পাওয়া যায়নি, এব্যাপারে অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।



একুশে মিডিয়া/এমএসএ

No comments:

Post a Comment

নিউজের নীচে। বিজ্ঞাপনের জন্য খালী আছে

Pages