দোহারে দেখা দিয়েছে পদ্মার ভাঙন - Ekushey Media bangla newspaper

Breaking News

Home Top Ad

এইখানেই আপনার বা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ: 01915-392400

নিউজের উপরে বিজ্ঞাপন

Friday, 5 June 2020

দোহারে দেখা দিয়েছে পদ্মার ভাঙন

মোঃ জাকির হোসেন, জেলা প্রতিনিধি:

ঢাকার দোহারে পদ্মা নদীতে ভাঙন দেখা দিয়েছে। বর্ষার প্রারম্ভেই বেড়েছে নদীর পানি। আর পানির স্রোতে ভেঙে যাচ্ছে নদীর তীরবর্তী পাড় এলাকা। গত ৭দিনে উপজেলার নয়াবাড়ি,বাহ্রাঘাট,বিলাশপুর,নারিশা বাজার ও মুকসুদপুর ইউনিয়নের বিভিন্ন জায়গার প্রায় ১০কিলোমিটার নদীর পাড় এলাকা থেমে থেমে ভাঙন দেখা দিয়েছে। 

সরেজমিনে দেখা যায়, উপজেলার নয়াবাড়ি,বাহ্রাঘাট,বিলাশপুর,নারিশা বাজার ও মুকসুদপুর ইউনিয়নের এলাকায় ভাঙন প্রতিদিন বেড়েই চলেছে। নদী ভাঙনের ফলে নারিশা ইব্রাহিমীয়া মাদ্রাসা,এতিমখানাসহ অর্ধশতাধিক দোকান-পাট ভাঙন ঝুঁকির মধ্যে রয়েছে।উল্লেখ্য গত ৫ বছরে এসব এলাকার বেশিরভাগ ফসলের জমি পদ্মা নদীর গর্ভে বিলীন হয়েছে এবং বহু মানুষ হারিয়েছে তাদের পৈতিক বসতভিটা। ঢাকা ১ আসনের সংসদ সদস্য সালমান এফ রহমানের প্রচেষ্টায় দোহারে পদ্মা নদী বাঁধের একাধিক প্রকল্প হাতে নেওয়া হলেও নয়াবাড়ি বাঁধ প্রকল্প ছাড়া আপাতত অন্য বড় প্রকল্প    এখনো শুরু করা হয়নি।

যার ফলে দোহারের মৈনটঘাটসহ বেশকিছু জায়গায় এইবছরেও নদী ভাঙন দেখা দিয়েছে৷ বেশ কিছু জায়গায় নদী বাঁধ প্রকল্পের জন্য কংক্রিটের ব্লক তৈরি করা হলেও লকডাউনের সময়ে কর্মীদের অভাবে সেটা স্থগিত রাখা হয়েছে। এ বিষয়ে দোহার উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আলী আহসান খোকন শিকদার বলেন, দোহারের মানুষের বহুদিনের সপ্ন পূরণের লক্ষে মাননীয় এমপি মহোদয় ইতোমধ্যে একাধিক বাঁধ নির্মাণের প্রকল্প হাতে নিয়েছে। খুব শীঘ্রই দোহারবাসী নদী ভাঙনের অভিশাপ থেকে মুক্ত পাবে বলেও তিনি মনে করেন।

দোহার উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো.আলমগীর হোসেন একুশে মিডিয়াকে জানান, দোহার মূলত পদ্মা নদী বেষ্টিত হওয়াতে প্রতি বছর বর্ষা মৌসুমে নদী তীরবর্তী এলাকায়  ভাঙন দেখা দেয়।বিষয়টি নজরে এনে মাননীয় সংসদ সদস্য ও প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান সাহেব তার নিরলস চেষ্টায় দোহারকে রক্ষা করতে পদ্মা রক্ষা বাঁধ প্রকল্প হাতে নেওয়া হয়েছে।করোনাকাল শেষ হলে নদীতে ড্রেজিংয়ের মাধ্যমে নদীর গতিপথ পরিবর্তন করে বাঁধ নির্মাণ করা হবে।




একুশে মিডিয়া/এমএসএ

No comments:

Post a comment

নিউজের নীচে। বিজ্ঞাপনের জন্য খালী আছে

Pages